১ ঘন্টা ১৩ মিনিট আগেই D.El.Ed পরীক্ষার প্রশ্ন ফাঁস, কী বলছে পর্ষদ সভাপতি

1/5: ১১ ডিসেম্বর হতে চলা টেট পরীক্ষা নিয়ে গত কয়েক সপ্তাহ ধরে সরগরম রাজ্য। এমনিতে নিয়োগ দুর্নীতি বিতর্কের মধ্যেই এই টেট পরীক্ষা সকলের নজর কেড়ে নিয়েছে। সেইসঙ্গে অতীতের অস্বচ্ছ পরীক্ষার যাবতীয় দায় ঝেড়ে ফেলতে এবারের টেট পরীক্ষাকে ঘিরে প্রাথমিক শিক্ষা পর্ষদ (WBBPE) যেভাবে একের পর এক নজিরবিহীন পদক্ষেপ নিতে শুরু করে তা সকলের নজর কেড়ে নেয়।

2/5: কটা পরীক্ষায় দেখা যায় মেটাল ডিটেক্টরের মধ্য দিয়ে হেঁটে পরীক্ষাকেন্দ্রে প্রবেশ করতে হচ্ছে পরীক্ষার্থীদের! এবারের টেট পরীক্ষায় সেটা হবে। এমনকি সঙ্গে মানিব্যাগটা পর্যন্ত রাখতে পারবেন না পরীক্ষার্থীরা। কিন্তু তার মাত্র সপ্তাহ দেড়েক আগে ডিএল‌এডের চূড়ান্ত বর্ষের প্রথম দিনের পরীক্ষার প্রশ্নপত্র ফাঁস হয়ে যাওয়াকে অনেকেই ‘খাজনার থেকে বাজনা বেশি’ হলে এমন‌ই হয় বলে কটাক্ষ করছেন!

1 hour 13 minutes ago D.El.Ed exam question leaked

3/5: টেটের ঠিক আগে ডিএল‌এডের প্রশ্নপত্র ফাঁস হয়ে যাওয়ায় আতঙ্কে ভুগছেন চাকরিপ্রার্থীরা। কারণ ডিএলএড পরীক্ষায় পরীক্ষার্থীর সংখ্যা অনেকটা কম। তাতেও যদি পর্ষদ সঠিকভাবে পরীক্ষা নিতে না পারে তবে প্রায় ৬ লক্ষ ৯০ হাজার পরীক্ষার্থীর টেট পরীক্ষাকে তারা কীভাবে সামলাবে তাই নিয়ে প্রশ্ন উঠছে।

4/5: বিশেষ করে টেটে প্রশ্ন ফাঁস বা অন্য কোনও একটা অনিয়ম দেখা গেলে সঙ্গে সঙ্গে আদালতে মামলা হওয়ার আশঙ্কাও আছে। সেক্ষেত্রে গোটা পরীক্ষা প্রক্রিয়ায় থমকে যেতে পারে। ফলে সবমিলিয়ে আস্থা তৈরির পরিবর্তে প্রাথমিক শিক্ষা পর্ষদের উপর চাকরিপ্রার্থীদের ক্ষোভ আরও কয়েকগুণ বেড়ে গিয়েছে।

5/5: এদিকে ডিএলএডের এই প্রশ্ন ফাঁসের পর প্রাথমিক শিক্ষা পর্ষদের ভূমিকা খুব একটা আস্থাব্যঞ্জক‌ও যেন নয়! এই নিয়ে সোমবার বিকেলে সাংবাদিক বৈঠক করে পর্ষদ সভাপতি গৌতম পাল (Goutam Pal) কী বলেছেন শুনুন-

ডিএলএড-এর প্রশ্ন ফাঁস নিয়ে পর্ষদ কী বলছে? 

1/4: সোমবার ডিএলএডের চূড়ান্ত বর্ষের প্রথম দিনের পরীক্ষা শুরু হওয়ার প্রায় ঘন্টাখানেক আগে প্রশ্ন ফাঁস হয়ে যায়। ফেসবুকে ঘুরে বেড়াতে থাকে প্রশ্নপত্র। যদিও ভাইরাল প্রশ্নপত্রের সঙ্গে পরীক্ষার প্রশ্নের কতটা মিল ছিল তা নিশ্চিত করে জানা যায়নি। এদিকে এই বিষয়টি সামনে আসতেই ঐদিন বিকেলে তড়িঘড়ি করে সাংবাদিক বৈঠক করেন পর্ষদ সভাপতি গৌতম পাল

2/4: সেখানে তিনি প্রশ্ন ফাঁসের ক্ষেত্রে পর্ষদের দায় স্বীকার করার পরিবর্তে অন্যদের উপর চাপিয়ে দেন। বলেন, “পরীক্ষা প্রক্রিয়ার সঙ্গে বহু শিক্ষক, সেন্টার ইনচার্জ সহ আরও অনেকে যুক্ত আছে। তাঁদের মধ্যে কেউ অসৎ হলে আমাদের কিছু করার নেই।”

3/4: গৌতম পালের পরিষ্কার ইঙ্গিত, প্রাথমিক শিক্ষা পর্ষদের ভেতরের কেউ নয়, পরীক্ষা প্রক্রিয়ার সঙ্গে যুক্ত বাইরের বাকি লোকজনের মধ্য থেকে এই প্রশ্ন ফাঁস হয়ে থাকতে পারে। পর্ষদ সভাপতি বলেন, “আমি বিশ্বাস করি না ডিএল‌এডের সব পরীক্ষার্থী ওই ভাইরাল প্রশ্নপত্র দেখে নিয়ে তারপর পরীক্ষা দিতে বসেছে।” সেই সঙ্গেই পর্ষদ সভাপতি জানিয়েছিলেন, প্রশ্ন ফাঁসের বিষয়টি খতিয়ে দেখার জন্য একটি বিশেষজ্ঞ কমিটি গঠন করেছেন তিনি।

4/4: এদিকে মঙ্গলবার জানা যায় ডিএল‌এডের প্রশ্ন ফাঁসের বিষয়টি হালকাভাবে নিতে রাজি নয় রাজ্য সরকার। তাই নবান্নের নির্দেশে এই বিষয়ের তদন্তভার সিআইডির হাতে তুলে দেওয়া হয়েছে। উল্লেখ্য সোমবার বেলা পৌনে এগারোটা নাগাদ অরিন্দম খাঁড়া নামে এক ব্যক্তি প্রথম ফেসবুকে ডিএল‌এডের প্রশ্নের বেশ কিছু স্ক্রিনশট পোস্ট করেছিলেন।

বিঃদ্র: নতুন কোনো চাকরির আপডেট মিস করতে না চাইলে আমাদের হোয়াটসঅ্যাপ গ্রুপএবং টেলিগ্রাম চ্যানেলে যুক্ত হয়ে যান। নিচে যুক্ত (Join) হওয়ার লিংক দেওয়া রয়েছে ঐ লিংকে ক্লিক করলেই যুক্ত হয়ে যেতে পারবেন। ওখানেই সর্বপ্রথম আপডেট দেওয়া হয়। আর আপনি যদি অলরেডি যুক্ত হয়ে থাকেন এটি প্লিজ Ignore করুন। 

Important Links:  👇👇
কাজকর্ম WhatsApp গ্রুপে জয়েন হোনClick Here
Telegram ChannelJoin Now

🔥 আরো চাকরির আপডেট 👇👇

🎯 সরকারি কর্মীদের ৩ গুণ বেতন বাড়তে পারে

🎯 রাজ্যের WBPSC থেকে নতুন চাকরির নোটিশ

🎯 টেট পরীক্ষার আগেই প্রশ্ন ফাঁস কেলেঙ্কারি