শিক্ষক নিয়োগ দুর্নীতি মামলায় তদন্তকারী অফিসারকেই বদলে দিলেন বিচারপতি গঙ্গোপাধ্যায়, কারন জেনে নিন

1/6: রাজ্যের শিক্ষক নিয়োগ দুর্নীতি মামলাকে তিনি সারদা-নারদা হতে দেবেন না বলে হাইকোর্টের ভরা এজলাসেই জানিয়ে দিলেন বিচারপতি অভিজিৎ গঙ্গোপাধ্যায় (Abhijit Gangopadhyay)। অর্থাৎ, সারদা ও নারদা কেলেঙ্কারির তদন্ত যেভাবে অনন্তকাল ধরে চলছে তেমনটা শিক্ষক নিয়োগ দুর্নীতির ক্ষেত্রে ঘটুক চান না বিচারপতি। আর তার জন্য‌ই সিবিআইয়ের বিশেষ তদন্তকারী দলের প্রধানকে বদলে দেওয়ার মতো কঠোর পদক্ষেপ‌ও করলেন তিনি।

2/6: এস‌এসসি ও প্রাথমিক শিক্ষা পর্ষদের মাধ্যমে রাজ্যের শিক্ষক নিয়োগ নিয়ে বড়সড় দুর্নীতি হয়েছে বলে ইঙ্গিত পাওয়া গিয়েছে। এই নিয়ে প্রায় সব মামলার‌ই তদন্তভার সিবিআইকে দিয়েছেন বিচারপতি অভিজিৎ গঙ্গোপাধ্যায়। পাশাপাশি বিপুল বেআইনি টাকা লেনদেনের আঁচ পেয়ে ইডি’ও আসরে নেমেছে। তবে এই শিক্ষক নিয়োগ দুর্নীতির তদন্ত নিয়ে ইডি-এর তৎপরতাই যেন বেশি। তারাই প্রাক্তন শিক্ষা মন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায় সহ একাধিক এস‌এসসি কর্তাকে গ্রেফতার করে।

justice-gangopadhyay-changed-the-investigating-officer-in-the-teacher-recruitment-corruption-case

3/6: এই অবস্থায় সিবিআইয়ের তদন্ত সঠিক পথে নিয়ে যাওয়ার জন্য তাদের অফিসারদের নিয়েই সিট গঠন করে দিয়েছিলেন বিচারপতি গঙ্গোপাধ্যায়। অখিলেশ সিং ছিলেন সেই সিটের নেতৃত্বে। কিন্তু তদন্ত সঠিক পথে পরিচালিত হচ্ছে না এবং তদন্তের গতি স্লথ হয়ে পড়ায় ক্ষুব্ধ বিচারপতি সিবিআইয়ের সেই সিটের প্রধানকেই বদলে দিলেন। সেইসঙ্গে তাঁর কড়া মন্তব্য বুঝিয়ে দিল শিক্ষক নিয়োগ দুর্নীতির তদন্ত নিয়ে বিন্দুমাত্র ঢিলেমি তিনি বরদাস্ত করবেন না।

4/6: বিচারপতি অভিজিৎ গঙ্গোপাধ্যায় শিক্ষক নিয়োগ দুর্নীতির তদন্তের জন্য সিবিআইয়ের সিটের প্রধান হিসেবে চেয়েছিলেন বাংলায় কাজ করে যাওয়া পঙ্কজ শ্রীবাস্তবকে। তিনি কড়া অফিসার হিসেবে পরিচিত। কিন্তু সিবিআই জানায়, পঙ্কজ শ্রীবাস্তব প্রমোশন পেয়ে আইজি পদমর্যাদার অফিসার হয়ে গিয়েছেন। তিনি বর্তমানে গাজিয়াবাদে সিবিআই একাডেমির দায়িত্বে আছেন। সেই কাজ ছেড়ে বাংলায় এসে তদন্তভার নেওয়া সম্ভব নয়।

5/6: এরপরই বিচারপতি গঙ্গোপাধ্যায় সিবিআইয়ের তিনজন ডিআইজি পদমর্যাদার দক্ষ অফিসারের নাম চেয়ে পাঠান। কলকাতা, রাঁচি ও চন্ডীগড়ের তিন ডিআইজি পদমর্যাদার অফিসারদের নাম হাইকোর্টে জানায় সিবিআই। এর মধ্যে থেকে চন্ডীগড়ের সিবিআই ডিআইজি অশ্বিন শেনভিকে বেছে নেন বিচারপতি।

6/6: আগামী এক সপ্তাহের মধ্যে তিনি কলকাতায় এসে শিক্ষক নিয়োগ দুর্নীতি মামলায় গঠিত সিটের দায়িত্বভার গ্রহণ করবেন। উল্লেখ্য, অশ্বিন শেনভি এর আগে বেশকিছু দুর্নীতির পর্দা ফাঁস করেছিলেন বলে জানা গিয়েছে। এখন দেখার, তদন্তকারী দলের এই রদবদলে তদন্ত প্রক্রিয়া ত্বরান্বিত হয় কিনা। বঞ্চিত যোগ্য চাকরিপ্রার্থীরা বিচার পান কিনা সেটাও দেখার।

বিঃদ্র: নতুন কোনো চাকরির আপডেট মিস করতে না চাইলে আমাদের হোয়াটসঅ্যাপ গ্রুপ এবং টেলিগ্রাম চ্যানেলে যুক্ত হয়ে যান। নিচে যুক্ত (Join) হওয়ার লিংক দেওয়া রয়েছে ঐ লিংকে ক্লিক করলেই যুক্ত হয়ে যেতে পারবেন। ওখানেই সর্বপ্রথম আপডেট দেওয়া হয়। আর আপনি যদি অলরেডি যুক্ত হয়ে থাকেন এটি প্লিজ Ignore করুন। 

Important Links:  👇👇
কাজকর্ম WhatsApp গ্রুপে জয়েন হোনClick Here
✅ Telegram ChannelJoin Now

🔥 আরো চাকরির আপডেট 👇👇

🎯 সত্যিই টেট পাশ করেছেন মমতা ব্যানার্জি, দিলীপ ঘোষরা?

🎯 বছরে দুবার হবে উচ্চমাধ্যমিক পরীক্ষা

🎯 রাজ্যের সেচ দপ্তরের চাকরিতে নিয়োগ

🎯 রাজ্যে সুপারভাইজার সহ বিভিন্ন কর্মী নিয়োগ