রাজ্যে শিক্ষক নিয়োগের দুটো সুখবর, শিক্ষামন্ত্রীর বৈঠক এবং আদালতের নির্দেশে এলো দারুন সিদ্ধান্ত

দুর্নীতি ও নিয়ম বহির্ভূত নিয়োগের জেরে এতোদিন রাজ্যের শিক্ষকদের চাকরি যাওয়া নিয়ে খবর হচ্ছিল। অবশেষে চাকা যেন কিছুটা উল্টোদিকে ঘুরল। এবার শিক্ষক পদে নিয়োগ নিয়ে সুখবর আসতে চলেছে। কলকাতা হাইকোর্টের নির্দেশের পর বঞ্চিত চাকরিপ্রার্থীদের কোন পথে নিয়োগ করা হবে তা ঠিক করে ফেলেছে প্রাথমিক শিক্ষা পর্ষদ। 

West Bengal New Teacher Recruitment Meeting Update

দুর্নীতি ও বেআইনি নিয়োগের কারণে হাইস্কুল শিক্ষকদের পাশাপাশি কয়েকশো প্রাথমিক শিক্ষকেরও চাকরি বাতিলের নির্দেশ দিয়েছিল কলকাতা হাইকোর্ট। তবে দিন কয়েক আগেই বিচারপতি অভিজিৎ গঙ্গোপাধ্যায় বেশ কিছু বৈধ চাকরিপ্রার্থীর নাম ঘোষণা করে জানিয়েছেন তাদের দ্রুত নিয়োগ করতে হবে।

প্রথম সুখবর, 

এরপরই প্রাথমিক শিক্ষা পর্ষদ স্কুল শিক্ষা দফতরের সঙ্গে পরামর্শ করে এই বিষয়ে বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করেছে। গতকাল অর্থাৎ ১৩ সেপ্টেম্বর থেকে ১৫ সেপ্টেম্বর বিকেল সাড়ে পাঁচটার মধ্যে আদালতের নির্দেশিকায় থাকা চাকরি প্রার্থীদের এই বিষয়ে উপযুক্ত নথি প্রাথমিক শিক্ষা পর্ষদের অফিসে জমা দেওয়ার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। TET পরীক্ষার খাতা রিভিউয়ের পর বর্ধিত নম্বরের নথি সহ ডিএল‌এড ট্রেনিংয়ের উপযুক্ত শংসাপত্র, মাধ্যমিক ও উচ্চমাধ্যমিক পরীক্ষার মার্কশিটের প্রতিলিপি সহ অন্যান্য প্রয়োজনীয় নথি অফ লাইনে প্রাথমিক শিক্ষা পর্ষদের অফিসে জমা দিয়ে আবেদন করতে বলা হয়েছে।

এই সমস্ত নথি ঠিক থাকলে আদালতে নির্দেশ মেনেই দ্রুত এই বঞ্চিত চাকরিপ্রার্থীদের নিয়োগ করা হবে বলে প্রাথমিক শিক্ষা পর্ষদ সূত্রে খবর।

দ্বিতীয় সুখবর,

এদিকে মঙ্গলবার প্রাথমিক শিক্ষা পর্ষদের সভাপতি ও এসএসসির চেয়ারম্যানের সঙ্গে বৈঠকে বসেছিলেন রাজ্যের শিক্ষামন্ত্রী ব্রাত্য বসু। সেই বৈঠকে শিক্ষক পদে স্বচ্ছ নিয়োগ নিয়ে বিস্তারিত আলোচনা হয়। কোন পথে দুর্নীতিমুক্ত নিয়োগ হবে এবং রাজ্যের শিক্ষক নিয়োগ প্রক্রিয়াকে বিতর্কমুক্ত করে তোলা যায় তা নিয়ে দীর্ঘক্ষণ কথা হয় তাঁদের মধ্যে।

ওই  বৈঠকেই ঠিক হয় খুব দ্রুত রাজ্যের হাইস্কুলগুলির প্রধান শিক্ষক পদে বাকী থাকা নিয়োগ সেরে ফেলা হবে। এই বিষয়ে অর্থ দফতরের ছাড়পত্র পাওয়া গিয়েছে বলে খবরে প্রকাশ। দ্রুতই এই নিয়ে বিজ্ঞপ্তি জারি করবে এসএসসি।

সূত্রের খবর শীর্ষস্থানীয় দুই কর্তার সঙ্গে বৈঠকে শিক্ষামন্ত্রী জানিয়েছেন, দ্রুত প্রাথমিক ও হাইস্কুলের পাশাপাশি উচ্চপ্রাথমিক স্কুলগুলির শূন্য শিক্ষক পদে নিয়োগ সারতে হবে। তবে এবারের শিক্ষক নিয়োগ প্রক্রিয়ায় যাতে কোন‌ও বিতর্ক তৈরি না হয় সেই বিষয়টির দিকে বিশেষ নজর রাখার নির্দেশ দিয়েছেন শিক্ষামন্ত্রী।

সবমিলিয়ে দুর্গাপুজো মিটলেই রাজ্যের বিভিন্ন স্কুলের শূন্য শিক্ষক পদে বিপুল নিয়োগের বিজ্ঞপ্তি প্রকাশিত হবে বলে আশা করছেন চাকরিপ্রার্থীরা। যদিও চলতি মামলাগুলির ভবিষ্যৎ কী হবে তার উপর সবটা নির্ভর করছে বলে বিশেষজ্ঞ মহলের মত।

👍 চাকরি ও কাজের গুরুত্বপূর্ণ আপডেট মিস না করতে চাইলে আমাদের ‘টেলিগ্রাম চ্যানেলে’ যুক্ত হয়ে যান

🔥 আরো চাকরির আপডেট 👇👇

🎯 রাজ্যের 30 হাজার ছেলে-মেয়েকে চাকরির নিয়োগপত্র

🎯 সরকারি চাকরিতে যেমন খুশি পোশাক পরার দিন শেষ

🎯 তৃণমূল আমলে চাকরি পাওয়া লোকেদের জন্য সরকারি নির্দেশ