এবার নবম-দ্বাদশ শ্রেণির শিক্ষক নিয়োগে দিতে হবে টেট? কেন্দ্রের নয়া নির্দেশিকা প্রকাশ

This time, the ninth-twelfth grade teachers should be given Tate? Center releases new guidelines

নয়া নির্দেশিকা জারি করতে চলেছে কেন্দ্রীয় সরকার। এবার থেকে স্কুলের যে কোনও শ্রেণিতে শিক্ষকতার চাকরির জন্য পাশ করতে হবে টিচার এলিজিবিলিটি টেস্ট, বা সংক্ষেপে টেট। কেন্দ্রীয় সরকার পরিকল্পনা করছে, কেবলমাত্র প্রাথমিক এবং উচ্চ প্রাথমিক নয়, উচ্চমাধ্যমিক স্তর অর্থাৎ দ্বাদশ শ্রেণি পর্যন্ত টেট পরীক্ষাকে বাধ্যতামূলক করার।

কেন্দ্রীয় শিক্ষা দফতরের অধীনস্থ ন্যাশনাল কাউন্সিল ফর টিচার এডুকেশন (এনসিটিই) সম্প্রতি দ্বাদশ শ্রেণি পর্যন্ত টেট পরীক্ষা বাধ্যতামূলক করার প্রস্তাব এনেছে। তাই এবার থেকে, প্রথম থেকে অষ্টম শ্রেণির জন্য যে নিয়ম চালু ছিল, সেই একই পদ্ধতি কার্যকর হবে নবম থেকে দ্বাদশের জন্যও।

এই টেট পরীক্ষাতে পাশ করলে তবেই নিয়োগ প্রক্রিয়াতে অংশ নিতে পারবেন চাকরিপ্রার্থীরা। এনসিটিই-র সচিব কেসাং ওয়াই শেরপা জানিয়েছেন, জাতীয় শিক্ষানীতি 2020-এর সুপারিশ মেনে সব স্তরের শিক্ষক নিয়োগের ক্ষেত্রে টেট আবশ্যিক করার উদ্যোগ নেওয়া হচ্ছে।

ন্যাশনাল কাউন্সিল ফর টিচার্স এডুকেশন সম্প্রতি একটি বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করে জানিয়েছে, প্রথম শ্রেণি থেকে দ্বাদশ শ্রেণি পর্যন্ত টেট কীভাবে হবে তা নিয়ে একটি পূর্ণাঙ্গ নির্দেশিকা তৈরি করা হচ্ছে। এই বিষয়ে পশ্চিমবঙ্গ সরকারের কোনও সুপারিশ থাকলে তা 15 ফেব্রুয়ারির মধ্যে মেল করে জানাতে হবে।

আরও জানানো হয়েছে যে, আগামী 31 মার্চের মধ্যে পুরো প্রক্রিয়া সম্পন্ন করে ফেলতে হবে। বিজ্ঞপ্তিতে আরও বলা হয়েছে যে, টেট পরীক্ষা সংক্রান্ত বিষয়ে সেন্ট্রাল বোর্ড অব সেকেন্ডারি এডুকেশন (সিবিএসই) এনসিটিইকে সাহায্য করবে।

এর ফলে, প্রথমে নবম থেকে দ্বাদশের শিক্ষক পদে চাকরির জন্য টেটের প্রশ্নপত্র এবং নম্বরের ব্যবস্থায় কেমন, কবে পরীক্ষা নেওয়া হবে, কারা ওই পরীক্ষা নেবেন ইত্যাদি বিষয়ে একটি খসড়া তৈরি করবে সিবিএসই। তারপরে এনসিটিইর সঙ্গে আলোচনা করে সমস্ত বিষয়ে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে।   

প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, রাজ্যে এত দিন পর্যন্ত কেবল মাত্র প্রথম থেকে অষ্টম শ্রেণি পর্যন্ত শিক্ষকতার জন্য টেট বাধ্যতামূলক ছিল। প্রাথমিক শিক্ষা পর্ষদের তরফে প্রথম থেকে পঞ্চম শ্রেণির টেট নেওয়া হত। তবে, ষষ্ঠ থেকে অষ্টম শ্রেণির চাকরিপ্রার্থীদের টেট নিত স্কুল সার্ভিস কমিশন।

কিন্তু রাজ্যে নবম থেকে দ্বাদশ শ্রেণির শিক্ষক নিয়োগের ক্ষেত্রে কোনও টেট পরীক্ষা নেওয়া হত না। এক্ষেত্রে, এসএসসি-ই শিক্ষকদের বিষয় ভিত্তিক পরীক্ষা নিত। তবে, কেন্দ্রের নির্দেশ অনুযায়ী, যদি এবার নবম থেকে দ্বাদশ শ্রেণি পর্যন্ত যদি টেট বাধ্যতামূলক হয় তা হলে চাকরিপ্রার্থীদের কি টেটের সঙ্গে বিষয়ভিত্তিক পরীক্ষা দিতে হবে? নাকি শুধু টেট পাশ করলেই মিলবে চাকরি? যদিও কেন্দ্রের তরফে এই নিয়ে অবশ্য এখনও স্পষ্ট করে কিছু জানানো হয়নি।


বিঃদ্রঃ চাকরি এবং নতুন কোনো নিয়োগের আপডেট, কর্মসংস্থান আপডেট মিস করতে না চাইলে আমাদের হোয়াটসঅ্যাপ গ্রুপে জয়েন হোন।

🔥 হোয়াটসঅ্যাপ গ্রুপ: Join Now

🔥 আরো চাকরির আপডেট 👇👇

👉 DM অফিসে কেস ওয়ার্কার পদে নিয়োগ, মাসিক বেতন ১৫ হাজার টাকা

👉 SBI ব্যাঙ্কে অ্যাসিস্টেন্ট ম্যানেজার সহ বিভিন্ন পদে চাকরি, লিখিত পরীক্ষা ছাড়াই নিয়োগ

👉 ৫০০ শূন্যপদে IDBI ব্যাঙ্কে নিয়োগের বিজ্ঞপ্তি, ২৬ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত আবেদন চলবে

👉 রাজ্যে সিভিক ভলেন্টিয়ার ও ভিলেজ পুলিশের বেতন বাড়লো

👉 BDO অফিসে সুপারিনটেনডেন্ট পদে নিয়োগ, মাসিক বেতন ১১ হাজার টাকা

Previous articleDM অফিসে কেস ওয়ার্কার পদে নিয়োগ, মাসিক বেতন ১৫ হাজার টাকা
Next articleকেন্দ্রীয় সরকারি কর্মীদের DA বাড়তে চলেছে, কতটা বাড়বে জানুন

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here